Text size A A A
Color C C C C
পাতা

সাধারণ তথ্য

রাজশাহী ওয়াসা

* ভূমিকা :

রাজশাহী মহানগরী বাংলাদেশের উত্তরাঞ্চলের একটি বিভাগীয় শহর এবং বাংলাদেশের ১১টি সিটি কর্পোরেশনের একটি। ১৯৮৭ইং সালে প্রায় ৪৮.৪৭ বর্গ কিলোমিটার এলাকা নিয়ে রাজশাহী পৌরসভা সিটি কর্পোরেশনে রূপান্তরিত হয়। বর্তমানে সিটি কর্পোরেশনের এলাকা বৃদ্ধি পেয়ে ৯৩.৪৭ বর্গ কিলোমিটার হয়েছে। এই মহানগরীতে বর্তমানে লোকসংখ্যা প্রায় ৯.০০ লক্ষ যার মধ্যে বহু সংখ্যক ভাসমান জনগোষ্ঠিসহ বাস্তিবাসি অন্তর্ভূক্ত রয়েছে। এই নগরী লম্বায় ১২ কিঃমিঃ এবং প্রস্থে প্রায় ৮ কিঃমি।

* বিবর্তনের ইতিহাস :

রাজশাহী মহানগরীতে পানি সরবরাহ ব্যবস্থা চালু করা হয় ১৯৩৭ইং সালে। পরবর্তীতে পাকিস্থান আমলে ১৯৬১ইং সালের পর হতে বাংলাদেশ সরকারের জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল অধিদপ্তর রাজশাহী মহানগরীতে পানি সরবরাহ ব্যবস্থার উন্নয়নমূলক কাজ হাতে নেয় এবং কিছুটা শৃংখলা আনায়ন করে। কিন্তু এই ব্যবস্থাপনা সীমিত আকারে ছিল এবং সার্বক্ষনিক পানি সরবরাহ ব্যবস্থা চালু ছিল। পরবর্তীতে এই মহানগরীর জন্য ১৯৮০ইং সালের পর ডাচ সাহায্যপুষ্ট একটি প্রকল্প হাতে নেওয়া হয়। সেই প্রকল্পের আওতায় উচ্চজলাধার নির্মাণ করতঃ পানি সরবরাহ ব্যবস্থাপনায় শৃংখলা সৃষ্টির প্রয়াস নেওয়া হয়। উল্লেখ্য ডাচ সাহায্যপুষ্ট প্রকল্পটি সীমিত আকারে থাকার কারণে নগরীর জনগণের পর্যাপ্ত পানির চাহিদা পূরণে যথেষ্ট ছিল না। এর প্রায় ১০ বছর পর সিটি কর্পোরেশন নিজের উদ্যোগে কিছু উৎপাদক নলকূপ খনন ও পাইপ  স্থাপন কাজ সম্পন্ন করে। এটিও ছিল নগরীর ক্রমবর্ধমান জনগণের তাৎক্ষনিক চাহিদা পূরণের জন্য একটি সীমিত ব্যবস্থামাত্র।

পরবর্তীতে ১৯৯৬ইং সালে জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল অধিদপ্তর কর্তৃক রাজশাহী মহানগরীতে পানি সরবরাহ প্রকল্প হাতে নেওয়া হয়। এই প্রকল্পের আওতায় ৪টি ভূগর্ভস্থ পানি শোধনাগার, ৩০টি উৎপাদক নলকূপ এবং ২৩১.৪৮কিঃমিঃ পাইপ লাইন স্থাপন করা হয়।

রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনভূক্ত এলাকার জন্য ১ আগস্ট, ২০১০ইং তারিখে রাজশাহী ওয়াসা প্রতিষ্ঠিত হয়। বিগত ১০ মার্চ, ২০১১ইং তারিখ হতে শালবাগান, পবা পানিশোধনাগার বিল্ডিং-এ রাজশাহী ওয়াসার কার্যক্রম পরিচালিত হচ্ছে।